আজ রবিবার, ২০ অগাস্ট ২০১৭, ০৩:৪৮ অপরাহ্ন logo

সোমবার, ০৯ নভেম্বর ২০১৫, ০৪:৪৩ পূর্বাহ্ন

ত্বকের সুরক্ষায় বরফের ব্যবহার

নিউজ ডেস্ক

জনতার নিউজ২৪ ডটকম :

আমরা বরাবরই প্রসাধনীর প্রতি দুর্বল। অথচ আমাদের ঘরে পাওয়া যায় এমন অনেক সামগ্রী, যা ব্যবহার করে বেশ ভালো ফল পেতে পারি। চেহারার সজীবতা আনতে পার্লার, ফেসিয়াল, ক্লিনজিং এসবের চেয়ে অনেক ক্ষেত্রে এক টুকরো বরফই ‘কাফি’ হতে পারে। যে কোনো ঋতুতেই এই বরফ মেথড কাজে লাগাতে পারেন। গ্রীষ্ম হোক বা শীত, ত্বকের যত্নে বরফ বেশ উপকারী। আসুন দেখে নিই, আমাদের রূপচর্চায় বরফের কিছু ব্যবহার।
 
১. কোনো মেকআপ ছাড়াই আপনার চেহারাতে উজ্জ্বলতা ফুঁটিয়ে তুলতে যথেষ্ট ঠাণ্ডা বরফ। কোনো অনুষ্ঠানে যাওয়ার আগে পরিষ্কার কাপড়ে মুড়িয়ে আলতো করে ত্বকে ঘষলেই বেরিয়ে আসবে উজ্জ্বলতা।
২. অভ্যন্তরীন রক্তচলাচল বৃদ্ধিতেও বরফ বেশ কার্যকর। আর ত্বকের স্বাভাবিক রক্ত চলাচল আপনার চেহারাকে করবে সতেজ।অনাকাঙ্ক্ষিত বয়সের ছাপ আর চোখের চারপাশের কালোদাগ দূর করতেও বরফ বেশ উপযোগী।
৩. তৈলাক্ত চেহারার অধিকারীদের জন্য বরফ আশীর্বাদ স্বরূপ। কারণ ত্বকের তৈলাক্ততা হ্রাসে বরফের ব্যবহার বেশ বড় ভূমিকা রাখে। কমিয়ে আনে ত্বকে তেলের উৎপন্নতা।
৪. মেকআপ তোলার পর ত্বকের খসখসে ভাব দূর করতে একটি বরফের টুকরো ঘষে মুখ ধুয়ে ফেলুন। দেখবেন খসখসে ভাব উধাও।
৫. বরফ কখনই সরাসরি ত্বকে ছোঁয়াবেন না। পরিষ্কার একটি কাপড়ে বরফের টুকরো পেঁচিয়ে তবেই ঘষুন। আর পেয়ে যান উজ্জ্বল সজীব ত্বক।
৬. যারা ব্রণের সমস্যায় ভুগে থাকেন তারা খুব সহজে ব্রণের প্রকোপ কমাতে পারেন বরফ ব্যবহার করে। একটি পরিষ্কার প্ল্যাস্টিকের ব্যাগে ২-৩ টি বরফের টুকরো পেঁচিয়ে নিয়ে ব্যাগটি ব্রণের ওপর ধরে রাখুন ১০ মিনিট। এতে ব্রণের লালচে ভাব দূর হবে। ব্রণের আকারও ছোট হয়ে আসবে। প্রতিদিনের ব্যবহারে ব্রণের প্রকোপ থেকে বাঁচবেন।
৭. ঘুম কম হলে কিংবা বেশি হলে আমাদের অনেকেরই চোখের নিচ ফুলে যায়। এতে দেখতে বেশ বিশ্রী দেখায়। এই সমস্যা দূর করবে বরফ। একটুকরো বরফ পরিষ্কার পাতলা কাপড়ে পেঁচিয়ে ইয়ে চোখের নিচে ফোলা জায়গায় ধরে থাকুন। এতে ফোলা ভাব কমবে।আপনার রাতের ক্লান্তিও দূর করবে। যদি খুব বেশি ফোলা ভাব হয় তবে চিনি ছাড়া গ্রিন টি তৈরি করে তা বরফ করে নিয়ে চোখের নিচে ধরে রাখুন। ভালো ফল পাবেন।
৮. শসা এবং স্ট্রবেরি ত্বকের উজ্জলতার জন্য অনেক বেশি কার্যকরী। ত্বকের উজ্জ্বলতা দ্রুত বৃদ্ধি করতে এই দুটি উপাদানের তৈরি বরফ বেশ কাজে দেবে। শসা অথবা স্ট্রবেরি যে কোনো একটি ব্লেন্ডারে খুব ভালো করে ব্লেন্ড করে নিন। এরপর এটিকে ডীপ ফ্রিজে রেখে বরফ করে নিন। এই বরফ মুখে ঘষুন সপ্তাহে ১ দিন। বরফটি অনেকটা স্ক্রাবারের মত কাজ করবে। এতে ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি পাবে।
৯. কাজের জন্য বাইরে তো বেরুতেই হয়। অনেক সময়ই ভালো সানস্ক্রিন ব্যবহার না করার ফলে ত্বকে পরে সূর্য রশ্মির পোড়া দাগ। এই রোদে পোড়া দাগ দূর করার জন্যও বরফ বেশ ভালো একটি উপাদান। ২-৩ টুকরো বরফ পরিষ্কার পাতলা কাপড়ে পেঁচিয়ে পোড়া স্থানের ওপর ঘষে নিন। এতে পোড়া দাগ দ্রুত মিলিয়ে যাবে।
১০. মেকআপ করার সময় অনেকেই একটি সমস্যার সম্মুখীন হন, তা হলো মুখে মেকআপ বসা নিয়ে। অনেকেই দেখেন মেকআপ মুখে ঠিকমত বসে না। ভাসা ভাসা থাকে। এতে মেকআপের কারণে মুখ আরও বিশ্রী হয়ে যায়। এই সমস্যার সমাধান করবে বরফ। মেকআপ শুরু করার আগে ২ টুকরো বরফ মুখে ঘষে নিন। এরপর মেকআপ করলে মেকআপ ত্বকে বসবে ভালো।
 
ত্বকের সুরক্ষায় বরফ বেশ কার্যকরী একটি উপাদান। নিয়মিত বরফের ব্যবহারে আপনার ত্বক থাকবে সুস্থ এবং প্রাণবন্ত। এর কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়াও নেই। তাই নিশ্চিন্তে প্রতিদিন ত্বকে এক টুকরা বরফ ব্যবহার করুন। তাতে ধীরে ধীরে রুক্ষ ত্বকে লাবণ্য ফিরে আসবে।