ভারত থেকে আসা যাত্রীদের ১৪ দিনের কোয়ারেন্টিনের নির্দেশনা

ভারত থেকে আসা যাত্রীদের ১৪ দিনের কোয়ারেন্টিনের নির্দেশনা

যশোরের বেনাপোল স্থলবন্দর দিয়ে ভারত থেকে আসা যাত্রীদের ১৪ দিনের প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে। আজ বুধবার থেকে এ নির্দেশনা কার্যকর করা হয়েছে।

এ বিষয়ে যশোরের জেলা প্রশাসক তমিজুল ইসলাম খান বলেন, ‘আজ থেকেই কোয়ারেন্টিন কার্যকরের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। বেনাপোল শহরে ২০০ থেকে ২৫০ জন ধারণক্ষমতার আবাসিক হোটেল আছে। অথচ বেনাপোল দিয়ে এখন প্রতিদিন যাত্রী আসছেন ৪০০ থেকে ৫০০ জন। এ কারণে যশোর শহরের হোটেলে হয়তো যাত্রীদের সরিয়ে আনতে হবে। এ বিষয়ে পদক্ষেপ নেব। আপাতত আমরা সরকারি নির্দেশনা বাস্তবায়নের উদ্যোগ নিচ্ছি।’

প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব আহমেদ কায়কাউস স্বাক্ষরিত প্রজ্ঞাপনে পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত এ সতর্কতা অবলম্বন করতে বলা হয়েছে। দেশে করোনার সংক্রমণ ও মৃত্যুর হার বেড়ে যাওয়ায় সংক্রমণ প্রতিরোধে এ ব্যবস্থা নিতে বলা হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে নির্দেশনাপত্রটি যশোর জেলা প্রশাসন, স্বাস্থ্য বিভাগ, বেনাপোল ইমিগ্রেশন ও পুলিশের হাতে আসে। নির্দেশনায় ভারত থেকে আসা যাত্রীদের নিজ খরচে কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে বলে জানানো হয়।

শার্শা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ইউসুপ আলী আজ সকালে বলেন, ‘ইমিগ্রেশনে আমাদের সব ধরনের প্রস্তুতি আছে। কিন্তু কোয়ারেন্টিনে রাখার জন্য হোটেল নির্দিষ্ট করে দেওয়ার দায়িত্ব প্রশাসনের। সেটা এখনো করা হয়নি। যে কারণে যাত্রীদের এখনই প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনে পাঠানো সম্ভব হচ্ছে না।’ তিনি বলেন, ‘যাত্রীদের কোয়ারেন্টিনে রাখার পরিবেশ তৈরি করতে স্থানীয় প্রশাসন ও স্বাস্থ্য বিভাগ যৌথভাবে কাজ করছে। এ নিয়ে উপজেলা প্রশাসনের সঙ্গে বৈঠক হয়েছে।’

বেনাপোল দিয়ে প্রতিদিন ভারতে যাতায়াত করছেন গড়ে দেড় হাজার যাত্রী। পর্যটন ভিসা বন্ধ আছে। মূলত চিকিৎসা ও ব্যবসায়িক কাজেই মানুষ এখন ভারতে যাতায়াত করছেন।

prothom alo

Top 8 জাতীয়